HOLIDAY MARKETING 101: THE 4 PHASES TO MAX ROI

Share This Post

Share on facebook
Share on linkedin
Share on twitter
Share on email

হলিডে মার্কেটিং ১০১ঃ দ্যা ৪ ফেজেস টু ম্যাক্স আরওআই

হলিডে শপিং সিজন আসতে আর খুব একটা দেরি নেই। অনেক ই-কমার্স বিজনেস এর জন্য লাস্ট কোয়াটার এনুয়্যাল আর্নিং এর ওপর একটা বড় প্রভাব ফেলে। এক্সাক্টলি হাও মাচ?

ন্যাশনাল রিটেইল ফেডারেশন এর মতে, কনজুমাররা এ্যাভারেজ  এ  $১০০৭.২৪ খরচ করেছে এই বছরের হলিডে সিজন এ, যা ৪.১ পারসেন্টের বেশি লাস্ট ইয়ার এর $৯৬৭.১৩ থেকে দ্যাটস নেয়ারলি $৭২০.৮৯ বিলিয়ন।

এই ধরনের গ্রোথ ২০১৮ সালের সাফল্যের প্রিপারেশন কে আরও ক্রিটিকাল করে তুলেছে। আমরা কাস্টমার জার্নি আর করেসপন্ডিং অ্যাকশন গুলো যা একটা ই-কমার্স বিজনেস কে কন্সিডার করা উচিত আরওআইকে মাক্সিমাইজ করার জন্য তাকে চারটি ফেজ এ বিভক্ত করেছি।

ফেজ ১ঃ ডিসকভার

১. কিউরেট বেস্ট সেলার লিস্ট

শপার উইস-লিস্ট চান তাদের হলিডে শপিং গাইডের জন্য। আপনার অলরেডি কোন সিস্টেম ইমপ্লিমেন্ট না থাকলে, রেজিস্ট্রি বা  উইশ-লিস্ট  ডেপ্লোইং করা সহজ রুট না। ইন্সস্টেড আপনি বেস্ট সেলার এর ওপর বেস করে কিউরেট লিস্ট ক্রাফট করতে পারেন অ্যান্ড সপারদের তা রিকমেন্ড করতে পারেন বা শেয়ারিং কেপাবিলিটিস এনাবেল করতে পারেন যেন আপনার স্টোর থেকে গিফট রিসিপিয়েন্টরা সহজেই তাদের প্রোডাক্ট শেয়ার করতে পারেন গিফট গিভারসদের সাথে। 

যদি আপনার শপার মিলেনিয়াল বা জেনার জেড’র হয় তাহলে এক্সপ্লোর করতে হবে যে কোনো সোশ্যাল মিডিয়া ইনফ্লুয়েনসার এর সাথে কাজ করা আপনার শপ এর জন্য বেনিফিসিয়াল হবে কিনা কিউরেট রিকমেন্ডেশন করার জন্য  ইন দ্যা ফরম ওফ উইশ-লিস্টস।

২. ক্রিয়েট লিমিটেড-টাইম অফারস

বেশিরভাগ সপাররা হলিডের মধ্যে গড়িমসি করে যার কারনে কন্সিডারেবল পোরশন হলিডে সেল ড্রাইভ হয়ে যায় ক্রিসমাস আসার দুসপ্তাহের মধ্যে। ইনভেন্টরি এবং শিপিংয়ের এর জন্য বিজনেস এ একটা

বড় প্রবলেম ক্রিয়েট হয়ে যায়। আপনি বেটার বিহেভিয়ার ইনকারেজ করতে পারেন লিমিটেড-টাইম সেল অফারের মাধ্যমে। দ্যা সেন্স ওফ আর্জেন্সি হেজিটেন্ট বায়ারদের একটা গুড ডিলের জন্য লাস্ট মিনিট ওয়েট থেকে বিরত রাখবে।

এ্যডিশোনালি লিমিটেড-টাইম অফারস আর পারফেক্ট ফর টার্গেটিং ইম্পালস বায়ার। বেস্ট মিনস টু ইনকারেজ ইম্পালস বাই হল বায়ার অতীতে ক্লিক করেছেন বা কিনেছেন এমন প্রোডাক্টগুলির ওপর বেজ করা। ওই আইটেমগুলো রি-টার্গেট করুন লিমিটেড-টাইম অফার হিসেবে মাল্টিপল চ্যানেল এর মাধ্যমে (উদাঃ ডিসপ্লে অ্যাডস, ইমেইল, সোশ্যাল মিডিয়া ইত্যাদি)।

৩. হান ইন দা পারফেক্ট ইমেইল

গত বছর এনআরএফ সার্ভে রিভিল করে যে ৫০% এরও বেশি শপাররা ইমেইল নোটিফিকেশন প্রেফার করে।  আপনার  বিজনেস দাড় করানোর জন্য আপনাকে স্ট্রাটিজেকলি ইমেইল এ্যাপ্রোচ করতে হবে। আপনার যদি সময় থাকে তাহলে ব্রাশ আপ ওন হাও টু ক্রিয়েট দ্যা পারফেক্ট ইমেইল।

৪. স্টার্ট আরলি

আপনার স্ট্রাটিজি আরলি প্লানিং এবং এক্সিকিউট করলে তা হলিডে সিজনে কমপেটিটরসদের প্রোমোশন দেখে রিয়্যাক্ট করা থেকে বিরত থাকতে আপনাকে হেল্প করবে । কাস্টমার বেজ বারনিং আউট করার রিস্ক ও কমে যাবে যদি টাইম নিয়ে  মেসেজ এবং প্রোমোশন যেগুলো আপনি শেয়ার করেছেন তার ক্যাডেন্স সেট করেন।

ফেজ ২ঃ পার্চেজ

১. প্রিমেট কাস্টমার পেইন পয়েন্টস

আপনার কাস্টমারের লার্জ বাজেট হবে কিন্তু পেশেন্স কম হবে তাই তাদের শপিং এক্সপেরিয়েন্স ইজি

 করতে হবে। নিজের সাইটকে প্রাইম করে তুলেন হলিডে ট্রাফিকে আরলি টাইমের অ্যাডভান্টেজ নিয়ে। মোরওভার কাস্টমার যেন রাইট পেইজে ল্যান্ড করে বেজ অন হু দে আর অ্যান্ড হুয়াট দে লাইক এইটা ইন্সিওর করতে হবে। বেস্ট সেলারদের ক্লিয়ারলি টপে প্লেসমেন্ট করতে হবে।

২. সেল টু সেলফ-গিফটারস

সব হলিডেতেই অন্যের জন্য পার্চেজ করা হয় না। সেলফ-গিফটারদের টার্গেট করার জন্যও নিজেকে সেট করতে হবে। এই কাস্টমার ডেমোগ্রাফিক ওপেন টু রিকমেন্ডেশন ফর্ম দ্যা রিটেইলার এর পার্ট তাই তাদের কাছে প্রমোট করতে হবে থ্রো “ ট্রিট দেমসেলভস” প্রমোশন এবং প্রোমোস গিফট করতে হবে।

ফেজ ৩ঃ কাস্টমার সার্ভিস

মিট দেয়ার এক্সপ্যাক্টেশনস

শপাররা সিকিউরেটি অ্যান্ড এ্যাসুরেন্স এক্সপেক্ট করে যখন কোন পার্চেজ করে- আপনি দুটোই প্রোভাইড করতে পারবেন থ্র গ্রেট রিটার্ন পলিসি। জেনারাস অ্যান্ড ট্রান্সপারেন্ট রিটার্ন পলিসি বুজায় ইউ স্ট্যান্ড বিহাইন্ড দা সেল।   

অন্যদিকে, কমপ্লিকেশন যেমন ফুল রিফান্ড প্রভাইড না করা বা অফার করা শুধু স্টোর ক্রেডিট হিসেবে, অলমোস্ট সারটেইনলি আপনার ডিল ব্রেক করে দিবে স্পেশাল যদি শপার পারচেজ কমপ্লিট করার কাছাকাছি থাকে। মোরওভার, সাইনটিফিক স্টাডিস থেকে দেখা গিয়েছে যে জেনারাস রিটার্ন পলিসিস পারচেজ ইনক্রিজ করতে হেল্প করে।

ফেজ ৪ঃ ফলো আপ

১। পুট ইওর বেস্ট ফুট ফরওয়ার্ড

হলিডে গিফট শপিং মানে আপনার স্টোরে নতুন অনেক ফার্স্ট টাইম কাস্টমার দেখবেন। এই অপুরচুনিটিকে ইউস করেন নতুন এবং পটেনশিয়াল লং-টার্ম কাস্টমার এ্যাকোয়ার করতে। এক্সিলেন্ট কাস্টমার  এক্সপেরিএন্স প্রভাইড করুন তার বিনিময়ে ইয়ার-রাউন্ডের মধ্যে ব্র্যান্ড লয়াল্টি পেলে অবাক হবার কিছু নেই। এবং মনে রাখবেন ব্র্যান্ড লয়াল্টি শুধু রিপিট পার্চেজকে বুঝায় না, কাস্টমার আপনাকে রিকোমেন্ড করছে তাদের সোশ্যাল সার্কেলে যেটা আল্টিমেটলি আপনার প্রফিটকে মাল্টিপ্লাই করবে। এই কম্পেটেটিভ স্পেসে, মোস্ট সাকসেস্ফুল রিটেইলার জানে ইভরি কাস্টমার ইন্টারেকসন ম্যাটার্স।

২. ইনকারেজ রিভিউ

যদি আপনি একটি ফ্যান্টাসটিক কাস্টমার এক্সপেরিয়ান্স প্রোভাইড করেছেন তাহলে আপনার কাস্টমারকে  এনকারেজ করুন রিভিউ লিখতে। আপনি তাদের পার্চেজ শেষে ইমিডিয়েটলি ফিডব্যাক দিতে বলতে পারেন। এই প্রোসেসটা যতটা সম্ভব ইজি এবং এফিশিয়েন্ট হতে হবে কারন আপনার কাস্টমারকে ভলেন্টিয়াররি একটা এক্সট্রা স্টেপ নিতে বলছেন। ফার্দার মোর আপনি শো করেন যে আপনি কেয়ার করেন রেসপন্ড করার মাধ্যমে যদিও সেটা নেগেটিভ রিভিউ হয়।

৩. মনিটর অ্যান্ড রেসপন্স টু নেগেটিভ ফিডব্যাক

কিছু ক্রিটিসিজমস এর জন্য আপনার ব্র্যান্ড বন্ধ হয়ে যাবে না। ইন ফ্যাক্ট, নর্থওয়েস্টার্ন ইউনিভার্সিটির স্পিয়েগেল ডিজিটাল এন্ড ডাটাবেস রিসার্চ সেন্টার  বের করেছেন যে কিছু নেগেটিভ  রিভিউ ব্র্যান্ড এর ট্রাস্ট ইস্টাব্লিস করতে পারে । এতে দেখা গিয়েছে যে রেটিং ৪.২ অ্যান্ড ৪.৫ এর মধ্যে থাকলে পার্চেজ

পিক এ থাকার পসিবিলিটি বেশি থাকে এবং পসিবিলিটি কমতে থাকে রেটিং ৫ স্টার এর কাছাকাছি গেলে। রিসার্চার্সরা বলেছেন, “কনজিউমাররা বুঝে যে একটা প্রোডাক্ট সবার ভাল লাগতে পারে না এন্ড দে এপ্রিসিয়েট নেগেটিভ রিভিউস কারণ তাদের ডিসিশন মেকিং প্রসেসের  এটা একটা  ইম্পরট্যান্ট এলিমেন্ট”। ইম্পরট্যান্ট  হলো আপনার উচিত এইসব ক্রিটিসিজম কে ট্রান্সপারেন্ট এবং রেস্পেক্টফুল ম্যানার এ হ্যান্ডেল করা।

Subscribe To Our Newsletter

Get updates and learn from the best

More To Explore

8 EASY TIPS FOR WORKING FROM HOME SUCCESSFULLY

সফলভাবে বাড়ি থেকে কাজ করার ৮ টি সহজ টিপস ২০২০ সালে ওয়ার্ল্ড ওয়াইড গ্লোবাল প্যানডেমিক এর কারণে রিমোট ওয়ার্কারদের পরিমাণে ইনক্রিজ হয়েছে এবং অফিসে কাজ

SEPTEMBER TRENDS REPORT

সেপ্টেম্বর  ট্রেন্ডস রিপোর্ট সেপ্টেম্বরের আসার সাথে সাথেই, ফল সিজন এর বাতাস বইতে শুরু করে। আবহাওয়া শীতল হতে শুরু করে এবং সর্বত্র লোকেরা আসন্ন ছুটির কথা