CONTENT MARKETING STATISTICS TO PAY ATTENTION TO IN 2018

Share This Post

২০১৮ সালে এটেনশন দেওয়ার জন্য কন্টেন্ট মার্কেটিং স্ট্যাটিসটিকস

টাইম কন্সামশন এর ব্যাপারে এই ইন্ডাস্ট্রি কোনো ছাড় দেয় না। এটাকে মোস্ট এফক্টিভলি ইউজ করবার জন্য আপনার টাইমকে ওয়াইজলি সিডিউল করতে হবে। আপনি যদি এই বছরের বাকি অংশ এবং পরবর্তী বছরে সফল হতে চান, তবে আপনাকে লেটেস্ট স্ট্যাটস এবং ট্রেন্ডগুলো জানতে হবে।

তাই আপনাকে হেল্প করতে, এডুকেটেড ডিসিশন নিতে আপনাকে হেল্প করার জন্য আমি কারেন্ট স্ট্যাটসগুলোর একটি লিস্ট কম্পাইলেড করেছি, পাশাপাশি আপনার ইন্ডাস্ট্রি এখন  কী কাজ করছে তার  আপটু ডেট রাখা হয়।

গিয়ারলঞ্চ.কম তাদের বিল্ড-ইন অ্যানালিটিক্স এর সাথে প্রয়োজনীয় ই-কমার্স অন্ট্রোপ্রেনার পক্ষে মডেল লেয়িং আউট করবার জন্য সেইম অ্যানালাইজড স্ট্যাটিস্টিক্স করেছিল। ট্রেন্ডগুলো চেকিং করে এবং রিয়েল-টাইম স্ট্যাটিস্টিক্সগুলো ইউটিলাইজিং এর মাধ্যমে, তারা ইন্ডাস্ট্রি ক্রেভিং করে মিসিং পিসগুলো ফিল আপ করতে সক্ষম হয়েছিল। এই ফিচারড ডিল ক্রাঞ্চ আর্টিকেল তাদের একজন টপ সেলারদের মধ্যে এটি সম্পর্কে কী বলেছিলেন তা একবার দেখে নিতে পারেন।

আপনার ডাটাকে জানা খুবই গুরুত্বপূর্ণ, তবে এটি প্রস্তুত হওয়ার সময় আপনার টার্গেট মার্কেটের প্যারামিটার যদি পুরোটাই অন্য স্তরে থাকে। একটি সিরিয়াস সুয়িং দিয়ে ২০১৮ সালে আপনাকে হিটিং রাখতে কিছু কারেন্ট স্ট্যাটিস্টিক্স দেখে নেয়া যাক।

১. ৫০% অফ গুগল পেইজ ১ র‍্যাঙ্কিং এখন এইচটিটিপিএস

এক বছরের মধ্যে, এই পার্সেন্টিজটি ৩০% থেকে ৫০% এ উঠে গেছে। এই এইচটিটিপিএস ইউজিং করে ওয়েবসাইটগুলোর গ্রোয়িং ট্রেন্ডের কারণে হতে পারে অথবা এটি হতে পারে যে গুগল সিকিউরিটিকে প্রাধান্য দিচ্ছে। আপনার সেলিং যেদিকেই হোক না কেন তা আপনার কাছে রয়েছে কিনা তা সিউর করুন।

২. মাত্র ৫৫% ব্লগার তাদের কন্টেন্ট আপডেট করেঃ

ডেটাতে দেখা গেছে যে ব্লগার এবং ওয়েবসাইটগুলো কারেন্ট ইনফর্মেশনের সাথে তাদের কন্টেন্ট আপডেট করে তাদের পোস্টগুলো থেকে সবচেয়ে শক্তিশালী রেজাল্ট পাওয়ার সম্ভাবনা ৭৪% বেশি।

৩. ৯৬% মানুষ যারা আপনার ব্র্যান্ড নিয়ে অনলাইনে কথা বলে তারা সোশ্যাল মিডিয়াতে সেটা ফলো করে না

এটি আমাদের জানায় যে আপনার ব্র্যান্ডকে ঘিরে বেশিরভাগ ডিসকাশন আপনার ফলোয়ার্সদের থেকে আসে না। আপনার পরবর্তী পদক্ষেপের প্ল্যানিং করার সময় এটি মনে রাখা গুরুত্বপূর্ণ। এক্সজিস্টিং কাস্টামার বেইজের মতো নিউ/পটেনশিয়াল কাস্টমারদের অ্যাপীল করুন।

৪. ৯১% সোশ্যাল মিডিয়া ইউজারস তাদের মোবাইল ডিভাইস থেকে সাইন ইন করে থাকে

আপনি আপনার অডিয়েন্সদের জন্য তৈরি প্রতিটি কন্টেন্টকে প্রতিটি ডিভাইসকে সমানভাবে ক্যাটার করবার প্রয়োজন রয়েছে। কিছু কিছু ক্ষেত্রে, অ্যাড সাইজিং এবং ফর্ম্যাটিং ডিফারেন্ট হতে পারে। নেক্সট টাইম আপনি একটি ক্যাম্পেইন ক্রিয়েট করবার সময় মনে রাখবেন এবং বেস্ট রেজাল্ট পেতে প্রতিটি গ্রুপের জন্য স্পেসিফিক্যালি এডজাস্ট করুন।

৫. গ্রাহকদের সাথে ইন্টারেক্ট করে এমন কোম্পানীগুলিতে বেশি টাইম স্পেন্ড করেনঃ

যেসব বিজনেস অ্যাক্টিভলি তাদের অডিয়েন্সদের সাথে ইন্টারঅ্যাক্ট করে তাদের কন্টেন্ট এবং প্রোডাক্টগুলোর সাথে এভারেজে  ২০-৪০% বেশি এনগেজমেন্ট দেখা গিয়েছে। মানুষ তাদের ফলো করা ব্র্যান্ডগুলোর সাথে ইন্টারঅ্যাক্টিং করার আইডিয়া পছন্দ করে – গেট টু ইট!

৬. গুগল ডিসপ্লে ক্যাম্পেইন গ্লোবাল ইন্টারনেট ইউজারদের কাছে ৮০% রিচ করে

গুগল বেঞ্চমার্ক এবং ইনসাইট থেকে এই ডাটা ডাইরেক্টলি নেয়া হয়েছে। আপনার নেক্সট মার্কেটিং ক্যাম্পেইন থেকে গুগলকে এক্সক্লুড করবেন না।

৭. ৬০% ইউজার্স গুগল বিজ্ঞাপনগুলো লক্ষ্য করে না যখন তারা দেখে থাকে


সার্ভেড করা ২,০০০ ইউজার্সদের মধ্যে, ১০ জনের মধ্যে থেকে ১ জন প্রতিদিন ৫০ টিরও বেশি ওয়েবসাইটের ভিজিটিং করার জন্য এডমিটেড করে। যাদের ৬০% পার্টিসিপেটেড নিয়েছিল তাদের মধ্যে থেকে বলেছে যে তারা গুগল স্পনসরড অ্যাড এবং অর্গানিক সার্চ রেজাল্টের মধ্যে পার্থক্য জানে না।

৮. প্রতিদিন ১০০ মিলিয়ন আওয়ার্স ভিডিও ফেসবুকে দেখা হয়

প্রতিদিন ৪.২ দিনের সমতুল্য ওয়ার্থ অফ কন্টেন্ট দেখা হচ্ছে। যদি এটা  আপনাকে আপনার ব্র্যান্ডের জন্য আরও ভিডিও কন্টেন্ট তৈরি করতে না দেয়, আমি জানি না কি হবে।

৯. গত বছর প্রকাশিত সকল ভিডির মধ্যে ৫৬% ভিডিওতে দুই মিনিটের বেশি ছিল

শর্ট এটেনশন স্প্যান্স রান র‍্যাম্পান্ট আজকাল আমাদের ফিডে কন্টেন্ট ওভারফ্লো হিসেবে চলছে। একটি দশ মিনিটের অ্যাড ভিডিও ইউজার্স এভারেজ এটেনশন হোল্ড করতে পারে না। ছোট, মিষ্টি এবং পয়েন্টে কিছু তৈরি করুন।

১০. প্রতি মাসে ২০০ মিলিয়ন মানুষ ইন্সটাগ্রাম স্টোরি ইউজ করে

আইজি স্টোরিগুলো যখন থেকে তৈরী হয়েছে তখন থেকে এর ইউজ বেড়েই চলেছে  এবং তারা এটি ইউজ করতে দ্বিধা করেন না। এটি আপনার ব্র্যান্ডকে যে পরিমাণ এক্সপোজারের সাথে অফার করে, তা আপনার এএসএপি ইমপ্লিমেন্ট করবার প্রয়োজন ছাড়াই চলে।

১১. ২.৫ মিলিয়ন মানুষ ম্যাসেজিং অ্যাপ ইউজ করে

এই সমস্ত ডিফারেন্ট ম্যাসেজিং অ্যাপ্লিকেশন এভেইলেবল, এটাই ন্যাচারাল যে মার্কেটার তাদের স্ট্র্যাটির্জিগুলো ইনকর্পোরেট করার জন্য কোন উপায় খুজে বের করবেন। মেনিচ্যাট এবং চ্যাটফুয়েল এর মতো অ্যাপস মেসেঞ্জারের মাধ্যমে আপনার অডিয়েন্সদের কাছে অটোমেটিক্যালি রেস্পন্ড জানানোর একটি উপায় তৈরি করেছে; ৮৮% ওপেন রেট এবং ৫৬% ক্লিক-থ্রো রেটের উপরের দিকে দেখানো হচ্ছে।

১২. এই টপ তিনটি মার্কেটিং ট্যাক্টিস এখনো লিডিং করছেঃ

টেবিলে ইন্ডলেস মার্কেটিং ট্যাক্টিসসহ, টপে ইউজড এবং ট্রাস্টেডরা এখনও ৬৫% এটি ব্যবহার করে, সোশ্যাল মিডিয়া (৬৪%) এবং কেস স্টাডিজ (৬৪%) নিয়ে ব্লগিং করছে।

১৩. পেইড কন্টেন্ট প্রমোশনগুলো ২০১৪ সালে যা ছিল তার থেকে পাঁচগুণ বেশি

এসইও, ইমেল মার্কেটিং এবং ইনফ্লুয়েন্সার মার্কেটিং এর সাথে ব্লগাররা তাদের সাইটে ট্র্যাফিককে পুশ করতে দেওয়ার সবচেয়ে সাধারণ উপায়। বিগত ৪ বছরে পেইড প্রমোশন প্রায় ৪০০% বেশি রাইজ করেছে।

১৪. দেখা এবং কেনার মধ্যেকার উইন্ডোটি খুব ছোট

৭১% কনজিউমার দেখার এক সপ্তাহের মধ্যে একটি আইটেম পারচেজ করে। এই কারণেই আপনার অডিয়েন্সদের নিউ প্রোডাক্ট দেখানোর সময় রি টার্গেটিং অ্যাডগুলো এত পাওয়ারফুল।

১৫. ভিডিও মোস্ট কাস্টমারদের কমিট করবার জন্য একটি  ডিসাইডিং ফ্যাক্টর

৬৪% কনজিউমার জানিয়েছেন যে একটি ভিডিও দেখে তাদের রিসেন্টলি পারচেজ করতে ইনফ্লুয়েন্সেড করেছে। শুধু তাই নয়, সোশ্যাল মিডিয়াগুলো এমন ব্র্যান্ডগুলোকেও পুরস্কৃত করে যারা ভিডিও অ্যাডগুলো আরও বেশি রিচ এবং ভিজিবিলিটির এলোয়িং করে তাদের ইউটিলাইজ করে।

১৬. প্রতিদিন ১৭৮ মিলিয়ন অ্যাক্টিভ স্ন্যাপচ্যাট ইউজার্স রয়েছে

স্ন্যাপচ্যাট রিসেন্টলি তাদের অ্যাড প্ল্যাটফর্মটি রোলিং আউটের সাথে, এটি ফেসবুক এবং টুইটারের মতো সাইটের তুলনায় তুলনামূলকভাবে অব্যবহৃত। স্ন্যাপচ্যাটের স্টোরি ফিডের সাথে যুক্ত হিউজ ওপেন রেটস কোয়েশ্চেনকে প্রম্পোট দেয়; তাহলে কেন এতো কম লোক এটি ব্যবহার করছে?

১৭. ৮০% পিন্টারেস্ট ইউজার্স তাদের মোবাইল ডিভাইস থেকে ব্রাউজ করে থাকে

আপনার কোম্পানির পিন্টারেস্টের জন্য কন্টেন্ট তৈরি করার সময়, অ্যাকাউন্টটি আপনার গ্রাফিক ডিজাইনারের সাথে নিবিড়ভাবে কাজ করার বিষয়টি নিশ্চিত করুন যে আপনি যা পোস্ট করছেন সেটি পিনটারেস্ট মোবাইলে দৃশ্যমান কিনা।

১৮. ৮০% মিলেনিয়ার বলে যে পিন্টারেস্ট তারা কী কিনতে চায় তা খুঁজে পেতে সহায়তা করে

যদি আপনার অডিয়েন্স মিলেনিয়াল এইজের মধ্যে থাকে, তবে পিনটারেস্ট আপনার প্রোডাক্টগুলো তাদের সামনে আনতে সহায়তা করবার একটি গ্রেট টুল হবে।

১৯. ৩০-৫০ বছর বয়সীদের মধ্যে ৮৪% অ্যাক্টিভলি ফেসবুক ইউজ করে

ফেসবুকের পুরানো অডিয়েন্স কুইকলি কার্যকর মার্কেটে পরিণত হচ্ছে, সুতরাং এগুলো বাদ না দেওয়ার বিষয়ে নিশ্চিত হন।

২০. পার্সোনালাইজ সাবজেক্ট লাইনের ইমেলগুলো ২৬% বেশী খোলা হয়

পার্সোনালাইজেশন আপনার কাস্টমারদের সবসময় আরও স্বাগত জানায় এবং আপনার ব্র্যান্ডের সাথে আরো কানেক্টেড করে তুলে। রিসেন্ট ডাটাগুলো দেখায় যে পার্সোনালাইজ কানেকশন আরো বেশী ইন্টারেস্ট এবং ব্র্যান্ড লোয়ালটি প্রডিউস করে।

এখন আপনি রিসেন্ট কিছু কনজিউমার ডেটা আপডেট করেছেন, এটি আপনার ব্যবহারের সময় এসেছে। মনে রাখবেন যে এই স্ট্যাটিস্টিক্স আপনাকে গাইড করবার জন্য আছে। আপনার স্ট্রার্টিজি ইহার উপর ভিত্তি করে ফোকাসিং না করবার জন্য আমি আপনাদের রেকমেন্ড করবো।

আপনার ব্র্যান্ডের পার্সোনাল ডেটা কালেক্টিং এবং আপনার নতুন মার্কেটিং ক্যাম্পেইন এডিং করবার বিষয়ে উৎসাহীত হন। প্রতিটি ব্র্যন্ডের ডিফারেন্ট ফলোইং  রয়েছে।

Subscribe To Our Newsletter

Get updates and learn from the best

More To Explore

Monthly Live about Facebook Marketing

Here we covered how to do Facebook marketing in effective ways which will drive more traffics and how you can raise the possibility to increase

1000 T-shirt Mockup

এখানে আপনারা পাচ্ছেন ১০০০ টিশার্ট-এর ফ্রি মকআপ! আপনার পছন্দ অনুযায়ী যেকোনো ডিজাইন নিয়ে কাজ করতে পারবেন একদম ফ্রি-তে। তাই দেরি না করে ডাউনলোড করে নিন